• slide news
  • »
  • কবি নাসরিন সিমি /একগুচ্ছ কবিতা/ঈশ্বরের হোলি খেলা/ভালো আছি সর্বনাম/দোয়েল পাখির কাব্য/গন্ধরাজ ও ঝড়ের কাব্য/অন্ত্যমিল আছে আমাদের

কবি নাসরিন সিমি /একগুচ্ছ কবিতা/ঈশ্বরের হোলি খেলা/ভালো আছি সর্বনাম/দোয়েল পাখির কাব্য/গন্ধরাজ ও ঝড়ের কাব্য/অন্ত্যমিল আছে আমাদের

প্রকাশ : জুন ২০, ২০১৯, ৬:০৪ অপরাহ্ণ

ঈশ্বরের হোলি খেলা

ঈশ্বরের হোলি খেলার রঙ শেষ হয়ে গেলে
সে আমার শিরা উপশিরায় এসে সূচ চালায়
জানিনা আজন্ম কোন প্রতিশোধের নেশায়
মেনকার প্রতিরূপ হয়ে গেছে জীবনের গল্প।

পাহাড়ের দুঃখের কথা শুনেছি শেরপার কাছে
শরবেধা পাখির মতো নিজেই মরেছি বারংবার
দৃষ্টির সম্মুখে ছিলো অবিরাম প্রণয়ের কীর্তন
চোখ বন্ধ করে কেঁদেছি সমুদ্রের পাশে থেকে

নিঃশ্বাসে জমে আগুন বিষের পেয়ালা ঠোঁটে
তুলে নিয়ে বারবার বেহুলার আসনে বসেছি
মাটির বাসর ঘরে ফণা তুলেছে নাগিণীরা
নগ্ন নৃত্যকলায় উদ্দাম ছিলো অপরাহ্ণ বেলা

দুধ কলা না রেখে রেখেছি শরীরের রক্তকণা
শুষে শুষে নিঃস্ব করে আমার শবদেহ রেখে
পৃথিবীতে মরা পচা গন্ধ ছড়িয়ে গোরখাদক
চলে গেছে আজ আরেক লোহার বাসর ঘরে।

ভালো আছি সর্বনাম

ভালো আছি সর্বনাম
বুকের ভেতর ধুকপুক নেই অকারণ
নেই হঠাৎ করে মরে যাওয়ার ভাবনা
রাক্ষসটা আর রক্ত মাংসের স্বাদ নিয়ে
ফিরে আসেনা মাঝরাতে অগ্নিদৃষ্টি নিয়ে

ভালো আছি সর্বনাম
এখন আমি যখন তখন আকাশ দেখি
বারান্দায় রোদ এসে খেলা করে যায়
রিঙটোন বেজে ওঠে ঝিকমিকি তারায়
গরম ভাত খাই অনায়াসে আঙুলের ডগায়

ভালো আছি সর্বনাম
ডালেভাতে কাঁচা লঙ্কায় নেই কৈফিয়ত
এতো ঘুম আমার এতোদিন কোথায় ছিলো
রাক্ষসপুরী থেকে কালো ভ্রমর উড়ে গেছে
এখন আমি স্বর্গদ্যানে হাঁটি লক্ষ্মী কার্তিক সহ।

দোয়েল পাখির কাব্য

নত হতে হতে শেষ বারের মতো
দাঁড়িয়ে দেখেছি পাঁচিলের ওপারে
কৃতদাসের বিপন্ন হাসি
মরীচিকার পেছনে খরচ করে নিঃস্ব হয়ে
ন্যাংটো রাজা দৌড়াচ্ছে মাটির রাস্তায়
দূর থেকে ভেসে আসে বেশ্যার শিৎকার
নীল জামদানির পাড়ে বেশ্যা মায়ের ঢলঢলে
ঝুলে পরা স্তনের আব্রু ঢাকেনা আর
সময়ের পাপে বোঝা বাড়ে পাহাড় সমান
নত হতে হতে উঠে দাঁড়ায় বিবর্ণ ঘাস
সবুজ সবুজ ঘাসে শুয়ে বিশ্রাম নেয়
একটি দোয়েল পাখি ও তার জোড়া ছানা।

গন্ধরাজ ঝড়ের কাব্য

নুয়ে থেকে থেকে একটি গন্ধরাজ গাছ
একেবারে মিশে ছিলো বাগিচার ভূমিতে
সাদা সাদা ফুলের গায়ে ভুঁইপোকারা
কিলবিল করে শুধু হাটতো আর হাটতো
গন্ধরাজ গাছটির দিকে তাকিয়ে কষ্ট হতো
ঈশ্বরের বন্দনায় বলতাম একটা ঝড় দাও
গাছটা আবার মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে থাক
ফুলগুলো ধুয়ে মুছে সাফ হোক বৃষ্টিতে
তারপর একদিন সত্যি সত্যি ঈশান কোনে
মেঘ জমা হতে হতে সত্যি সত্যি ঝড় এলো
বড় বড় আঙুরের ফোঁটার মতো বৃষ্টি পড়ে
গন্ধরাজ ফুলের গায়ে ঝিকমিক করে রোদ
সোনালী রোদের ভরে গাছটা মাথা উঁচু করে
মাঝে মাঝে দুষ্ট বিদেশি বাতাসে নড়ে ওঠে
গন্ধরাজ গাছটি আর নুয়ে পড়েনি কোনদিন
সে এখন বাগিচার সবচেয়ে উঁচু হয়ে আছে।

অন্ত্যমিল আছে আমাদের

একে একে খসে পড়ছে গাছের কাণ্ড
রাক্ষুসী এক ঝড় এলোমেলো করে দেয়
সবুজ সবুজ ঘাসে শুয়ে দেখি রূপান্তর
সময়ের অনেক পরে অবাক চোখে দেখি
হলুদ ঝরাপাতারা দুমড়ে মুচড়ে আছে
কে যেন আমাকে মাড়িয়ে গেছে অজান্তে

চিৎ হয়ে শুয়ে দেখি ঘোলাটে মেঘদল
চিরচেনা আকাশের রঙ পাল্টে গেছে
বৃষ্টির সাথে অনেক শিলারাশি তীর্যক
বেগে ছুটে এসে ঠিক পাঁজরে বিদ্ধ করে
বুকের কোন এক অলিন্দ ছিড়ে গিয়ে
অনেক যন্ত্রণার রক্তপাত ঘটে গোপনে।

সমুদ্রের জল একসময় শুকিয়ে গেলে
রাশি রাশি পাথর এসে জমে সৈকতে
বহু বছরের কষ্ট জমে জমে মুক্তার জন্ম
যে শুক্তির ভেতরে তার দীর্ঘশ্বাস আমার
খুব বেশি চেনা মনে হয় আমার কেন যেন
হয়তো আমাদের কোন অন্ত্যমিল আছে।

শূন্য সময়ের কাব্য

প্রগাঢ় ঘুম ভেঙে গেলে অসময়ে চারপাশে
ঝিঁঝিঁ পোকারা ঘিরে ধরে
সময়ের অরাজকতা বড় শূন্য হয়ে যায়
নিঃসঙ্গতা বিশ্বাসঘাতকের ভূমিকায় আসীন
কে যেন কড়া নাড়ে খটখট খটখট ,,,
আমার ভেতরে কেঁপে ওঠে তৃষ্ণা ভয়
শূন্য হয়ে যায় জীবনের প্রতিটি প্রহর
কোথাও কোন অশীরিরি আত্মার কান্না শুনি
কে কাঁদে? কে?
আয়নার সামনে দাঁড়াই চোখ বন্ধ করে
ধীরে ধীরে চোখ খুলে দেখি ভয়ার্ত শিশুর মতো
আয়না তখন অট্টহাসিতে ফেটে পড়ে
চারদিকে ছড়িয়ে ছিটিয়ে কাঁচের ভাঙা টুকরো
আয়নার ভেতরে কোন ছবি ছিলোনা তখন
ছিল রক্তমাংসহৃদয় বিহীন একটা কঙ্কাল
শূন্য সময়ের স্রোতে ভেসে আসে বেদনার নীল
আকাশে রূপালী জোছনা ম্লান হয়ে যায়
কতগুলো বিদেশি মেঘ এসে জড়ো হয়

 



সর্বশেষ সংবাদ
বেতাগী চান্দখালীতে গাজাঁ সহ আটক ১ মঠবাড়িয়ায় কলেজ ছাত্রীকে ব্লেড দিয়ে আহতের মামলার প্রধান আসামী দুলাল গ্রেফতার স্বরূপকাঠি পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের রাজনীতিতে উজ্জ্বল নক্ষত্র সিফাত উল্লাহ নেছার স্বরূপকাঠীতে "৭১ বাংলা অনলাইন টিভির" দুই কথিত সাংবাদিক ইয়াবা সহ আটক কথা রাখলেন পিরোজপুর পুলিশ সুপার, ১০৩ টাকায় দিলেন কনস্টেবল পদে চাকরি বরগুনায় রিফাত হত্যাঃ দেশব্যাপি অভিযান মঠবাড়িয়ায় যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যার চেষ্টা বাংলাদেশের সীমান্তে রেড এ্যালার্ট জারী নেছারাবাদ(স্বরূপকাঠী) থানার ওসি’র তৎপরতায় নড়েচড়ে বসে মাদক ব্যবসায়ীসহ সেবিকারা কবি নাসরিন সিমি /একগুচ্ছ কবিতা/ঈশ্বরের হোলি খেলা/ভালো আছি সর্বনাম/দোয়েল পাখির কাব্য/গন্ধরাজ ও ঝড়ের কাব্য/অন্ত্যমিল আছে আমাদের